Planets Sun Sun Sun Sun

ক্যাম্পাস’র কার্যক্রম সম্পর্কে জাতীয় গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিত্বগণ যা বলেন

জ্ঞানভিত্তিক ও ন্যায়ভিত্তিক সমাজ প্রতিষ্ঠায় নানা ধরনের কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছে ক্যাম্পাস। ক্যাম্পাস’র বিভিন্নমুখী কর্মসূচি, গবেষণা, ট্রেনিং প্রোগ্রাম ছাত্র-তরুণ সমাজকে দেশের কল্যাণে লিডার হিসেবে গড়ে তুলছে। (নভেম্বর ২০১৬)

জাতির বরেণ্য সন্তানদের সম্মাননা দিয়ে ক্যাম্পাস সমাজ উন্নয়ন কেন্দ্র যেমনি গৌরবান্বিত হয়েছে, তেমনি পুরো জাতিকেই তারা গৌরবান্বিত করেছে। (নভেম্বর ২০১৬)
-ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, জাতীয় সংসদের স্পিকার

জীবনমুখী, জাতি-জাগরণী কর্মযজ্ঞের ব্যতিক্রমী প্রতিষ্ঠান ক্যাম্পাস’র কর্মসূচিসমূহ অত্যন্ত ডায়নামিক ও সৃজনশীল, জাতির প্রাণপ্রবাহ সৃষ্টিতে উদ্দীপকস্বরূপ। (নভেম্বর ২০১৬)

ক্যাম্পাস হচ্ছে চির তারুণ্যের প্রতীক। ক্যাম্পাস’র কর্ণধার ড. এম হেলালের নেতৃত্বে যুগোপযোগী বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনার মাধ্যমে ক্যাম্পাস যে অবস্থানে পৌঁছেছে, তাতে বলা যায়- দেশ ও জাতিকে দুর্বার গতিতে এগিয়ে নেয়ার সহায়ক শক্তি হবে ক্যাম্পাস। (জুলাই ২০১৮)
-এম এ মান্নান, অর্থ প্রতিমন্ত্রী

ক্যাম্পাস ছাত্র-যুবকদের দিচ্ছে জীবন-চলার দিকনির্দেশনা। বহুমুখী কার্যক্রমের মাধ্যমে ক্যাম্পাস জাতি গঠনে ভূমিকা রাখছে। ক্যাম্পাস’র কর্ণধার ড. এম হেলাল একজন তারুণ্যদীপ্ত মানুষ এবং অসাধারণ সাংগঠনিক নৈপুণ্যের অধিকারী। তার মধ্যেও সবসময় তারুণ্য জাগ্রত থাকে। (এপ্রিল ২০১৮)
-সৈয়দ মঞ্জুর এলাহী, চেয়ারম্যান, এপেক্স গ্রুপ,

ক্যাম্পাস ছাত্র-তরুণদের ব্রেন প্রোগ্রাম নিয়ে কাজ করে। ছাত্র-তরুণদের চিন্তাশক্তি বৃদ্ধির মাধ্যমে তাদেরকে পজিটিভ চিন্তায় ও দেশপ্রেমে জাগ্রত করছে ক্যাম্পাস। এভাবে যুব সমাজের অন্তর্নিহিত শক্তিকে জাগিয়ে তুলে জাতিকে সুনিশ্চিত সাফল্যের দিকে নিয়ে যাচ্ছে ক্যাম্পাস। (মার্চ ২০১৭)
-ব্যারিস্টার এম আমীর-উল ইসলাম, স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র রচয়িতা, অন্যতম সংবিধান প্রণেতা

সমাজ উন্নয়নের ক্ষেত্রে ক্যাম্পাস’র ব্যতিক্রমী চিন্তাধারা দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তরে। জ্ঞানভিত্তিক ও ন্যায়ভিত্তিক সমাজ এবং আলোকিত জাতি গঠনে ক্যাম্পাস’র বহুমুখী কর্মসূচি এক ব্যতিক্রমী প্রয়াস। (অক্টোবর ২০১৭)
-মোঃ সোহরাব হোসাইন, সচিব, শিক্ষা মন্ত্রণালয়,

ক্যাম্পাস শুধু একটি পত্রিকাই নয়, এটি মাল্টিডাইমেনশনাল আলোকিত একটি প্রতিষ্ঠান। দেশনিয়ন্তা এবং নীতিনির্ধারকদেরকে লাইট হাউজের মতো পথ দেখাচ্ছে ক্যাম্পাস। সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠার স্বপ্নকে ধারণ করে যুবসমাজকে উজ্জীবিত করছে, তাদেরকে ডায়নামিক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত করছে ক্যাম্পাস। (এপ্রিল ২০১৭)

অন্যের সাহায্যে এগিয়ে আসলে দেশ ও সমাজ এগিয়ে যাবে। অন্যকে সাহায্য করতে থাকলে নিজের সমস্যা থাকবে না। ক্যাম্পাস’র এ স্লোগান আমাদেরকে আলোড়িত করে, উজ্জীবিত করে। (এপ্রিল ২০১৭)
-মাফরুহা সুলতানা, সরকারের সচিব

ক্যাম্পাস দেশের জন্য, দশের জন্য অনেক কাজ করছে। ড. হেলাল এর নেতৃত্বে পরিচালিত ক্যাম্পাস’র কার্যক্রমগুলো দেশ ও জাতির উন্নয়ন এবং প্রাগ্রসর অভিযাত্রায় অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে। ছাত্র-তরুণদের নিয়ে ক্যাম্পাস’র যুগোপযোগী কর্মসূচিগুলো সত্যিই আশাব্যঞ্জক। স্কুল শিক্ষাকে কেন্দ্র করে ড. হেলালের আরেকটি কাজ আমার খুব ভালো লেগেছে, তা হলো এলাকাভিত্তিক স্কুলিং মডেল প্রণয়ন। (এপ্রিল ২০১৮)
-আরাস্তু খান, চেয়ারম্যান, ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিঃ,

বাংলাদেশ উন্নয়নের প্রেক্ষাপটে ক্যাম্পাস স্টাডি সেন্টার একটি যুগোপযোগী প্রকল্প; যার রয়েছে সুদূরপ্রসারী উপযোগিতা, থাকবে বহুমুখী অবদান। এ প্রকল্প বাস্তবায়নে সমাজের বিত্তশালীরাসহ আমাদের সকলের সহযোগিতার হাত বাড়ানো উচিত। (মার্চ ২০১৭)
-এডভোকেট এলিনা খান, প্রতিষ্ঠাতা-চেয়ারপার্সন, বাংলাদেশ হিউম্যান রাইটস ফাউন্ডেশন

সমাজ প্রগতিতে ও মানুষের চিন্তাধারা পরিবর্তনে ক্যাম্পাস’র উদ্যোগ কত প্রসারিত ও অগ্রসরমান, ক্যাম্পাস’র স্টাডি সেন্টার প্রতিষ্ঠিত হলে তা দীপ্যমান হয়ে উঠবে; ক্যাম্পাস’র প্রোথিত স্টাডি সেন্টার নামীয় চারাগাছটি একদিন মহিরুহে পরিণত হবে; ক্যাম্পাস’র আবেদন একদিন বিশ্বময় ছড়িয়ে পড়বে। (জুন ২০১৭)
-মোঃ হেলাল উদ্দিন, নির্বাহী পরিচালক, জিএসপি ফিন্যান্স

ক্যাম্পাস জ্ঞানের যে মশাল জ্বালিয়েছে, তা থেকে এখন লক্ষ আলো প্রজ্জ্বলিত হয়েছে। আলোয় আলোয় সম্মিলন হয়েছে। এভাবে ক্যাম্পাস সমাজ থেকে অন্ধকার দূর করছে। (অক্টোবর ২০১৬)
-কবি নাসির আহমেদ, পরিচালক (বার্তা), বাংলাদেশ টেলিভিশন

< Prev1234567891011121314151617Next