বিশেষ খবর

কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষার্থীর সংখ্যা ২০ শতাংশে উন্নীত করতে আইইউটি বিশেষ অবদান রাখছে -শিক্ষামন্ত্রী

ক্যাম্পাস ডেস্ক শিক্ষা সংবাদ
img

শিক্ষামন্ত্রী নূরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, ওআইসি পরিচালিত ইসলামী ইউনিভার্সিটি অফ টেকনোলজি (আইইউটি) ইসলামী উম্মার মধ্যে প্রযুক্তি ও বৃত্তিমূলক শিক্ষায় ব্যাপক ভূমিকা পালন করে আসছে। বাংলাদেশ সরকার ২০২১ সালের মধ্যে তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে বাংলাদেশকে একটি পূর্ণাঙ্গ ডিজিটাল দেশে রূপান্তরিত করতে বদ্ধপরিকর।
তিনি ৮ ডিসেম্বর গাজীপুরের বোর্ডবাজার এলাকায় অবস্থিত ইসলামী ইউনিভার্সিটি অফ টেকনোলজির সমাবর্তন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশের কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষার্থীর সংখ্যা ২০ শতাংশে উন্নীত করতে আইইউটি বিশেষ অবদান রাখছে।
তিনি শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, আইইউটি’র মতো আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে পেরে তোমাদের ক্যারিয়ারে একটি মজবুত ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেছো। তিনি বিদেশি শিক্ষার্থীদের বলেন, বিশ্বব্যাপী তোমাদের অর্জিত মেধা ছড়িয়ে দিতে সচেষ্ট থাকবে।
এসময় বক্তব্য রাখেন, ওআইসি’র মহাসচিবের পক্ষে সহকারী মহাসচিব (বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি) মোঃ নাইম খান, আইইউটি’র গভর্নিং বোর্ডের চেয়ারম্যান ডাঃ মোঃ সাইদ আল আলাম আল জাহারানী, আইইউটি’র উপাচার্য প্রফেসর মুনাজ আহমেদ নূর প্রমুখ।
সমাবর্তনে এক শিক্ষার্থীকে ওআইসি মেডেল এবং চার শিক্ষার্থীকে আইইউটি মেডেল দেয়া হয়। বাংলাদেশের আবরার ফায়েজ ওআইসি মেডেল এবং বাংলাদেশের নাগরিক মোঃ উমর ফারুক, তানভীর হাসান মেহেদি, মোঃ আসিফ হাসান অনিক ও উগান্ডার নাগরিক হামিছি রামাদানকে আইইউটি মেডেল দেয়া হয়।


আরো সংবাদ

শিশু ক্যাম্পাস

বিশেষ সংখ্যা

img img img

আর্কাইভ